Error
  • JUser: :_load: Unable to load user with ID: 140
  • JUser: :_load: Unable to load user with ID: 133
  • JUser: :_load: Unable to load user with ID: 136
  • JUser: :_load: Unable to load user with ID: 138
07 Apr 2016

যেভাবে বিভাগ হতে পারে পাঁচটি মন্ত্রণালয়

font size decrease font size decrease font size increase font size increase font size

যেভাবে বিভাগ হতে পারে পাঁচটি মন্ত্রণালয়

বাংলা খবর ডেস্ক : পাঁচ মন্ত্রণালয়ের অধিনে দশটি বিভাগ করা হলে কোন জটিলতা তৈরি হবে না বলে মনে করছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। তাদের মতে, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের ওই সব দপ্তর ও পরিদপ্তরে এবং অধিদপ্তরে যারা কাজ করছেন তাদের সহই ভাগ করতে হবে। পরে প্রয়োজন হলে নতুন করে লোকবল নিয়োগ করে তা বাড়ানো যেতে পারে। তবে পাঁচজন নতুন সচিব প্রয়োজন হবে। সেই রকম বেশ কয়েকজন কর্মকর্তা রয়েছেন যাদেরকে পদোন্নতি দিয়ে নতুন সচিব করা যেতে পারে। নতুন বিভাগের সঙ্গে সঙ্গে নতুন সচিবও হতে পারে। তাদের মতে নতুন করে এক একটির অধিনে দুটি বিভাগ করা হলে ব্যয় কিছুটা বাড়বে। তবে ব্যয় মেটাতে সরকারের উপর চাপ পড়বে না।
সূত্র জানায়, প্রথমে শিক্ষা ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধিনে দুটি করে বিভাগ করা হচ্ছে। ৪৫টি মন্ত্রণালয়ের মধ্যে বর্তমানে আটটি মন্ত্রণালয়ের একাধিক বিভাগ রয়েছে। এরমধ্যে অর্থ মন্ত্রণালয়ের তিনটি বিভাগ রয়েছে। তিনটিতে তিনজন সচিব দায়িত্ব পালন করছেন। মন্ত্রণালয়ের অধিনে যেসব বিভাগ করা হয়েছে এই জন্য আলাদা সাংগঠনিক কাঠামো তৈরি করা হয়েছে। এখন যে পাঁচটি মন্ত্রণালয়ের অধিনে দশটি বিভাগ করা হচ্ছে এর অধিনে কোন দপ্তর, অধিদপ্তর ও সংস্থা থাকবে তা ঠিক করে এরপর সাংগঠনিক কাঠামো তৈরি করা হবে। এজন্য মন্ত্রিপরিষদ সংশ্লিস্ট মন্ত্রণালয়ের সহায়তা নিবে। বর্তমানে সব মিলিয়ে ৭৫ জন সচিব ও সচিব মর্যাদায় দায়িত্ব পালন করছেন। নতুন করে দশটি বিভাগ করা হলে আরো নতুন পাঁচজন সচিব নিয়োগ করা হবে। সরকার নতুন বিভাগের জন্য যোগ্য সচিব কাকে কাকে করা হতে পারে সেটাও বিবেচনা করছে।
সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, মন্ত্রিপরিষদের সংশ্লিষ্ট বিভাগ এই ব্যাপারে প্রয়োজনীয় প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে এরপর সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়কে তা ভাগ করার জন্য দায়িত্ব দিবে। ইতোমধ্যে এইসব মন্ত্রণালয়ের অধিনে বিভাগ করা হলে কি পরিমাণ ব্যয় বাড়তে পারে সেটাও বিবেচনা করা হচ্ছে।
জনপ্রশাসন সচিব ড. কামাল আব্দুল নাসের চৌধুরী বলেন, পাঁচটি মন্ত্রণালয়ের অধিনে বিভাগ করা হলে সেটা বেশি জটিল হবে বলে মনে হচ্ছে না। এখন যে ব্যয় আছে তার চেয়ে ব্যয় কিছুটা বাড়বে। এছাড়া লোকবল নতুন করে নিয়োগ করার দরকার হলে সেটাও করা হবে। তবে এখন যারা ওই সব দপ্তরে ও অধিদপ্তরে কাজ করছেন তাদেরকে সেখানে রেখে বিভাগ তৈরি করা হলে কাজের সুবিধা হবে। তিনি বলেন, মন্ত্রণালয়ের বিভাগ তৈরি হলে নতুন করে কোন জটিলতা তৈরি হবে বলে আমি মনে করি না। আমার কাছে ্এই ব্যাপারে প্রস্তাব আসার পর আমরা পুরো বিষয়টি তুলে ধরবো।
সূত্র জানায়, ১৯৮৬ সালে সরকারি আদেশ বলে প্রতিষ্ঠা করা হয় বেসামরিক বিমান পরিবহণ ও পর্যটন মন্ত্রণালয়। তখন থেকে এটি একটিই রয়েছে। আগামী দিনে এর অধিনে দুটি বিভাগ করা হবে। এর একটি হতে পারে বেসামরিক বিমান পরিবহণ ও অন্যটি হতে পারে পর্যটন বিভাগ। প্রতিটি বিভাগের জন্য একজন করে সচিব প্রধান হিসাবে দায়িত্ব পালন করবেন। দেশি বিদেশি এয়ারলাইন্সের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সব দপ্তর, অধিদপ্তর, করপোরেশন, বিমান বাংলাদেশে এয়ারলাইন্স লিমিটেডসহ বিভিন্ন কোম্পানী নিয়ে বেসামরিক বিমান পরিবহণ বিভাগ হবে। পর্যটন শিল্পের উন্নয়নে একটি বিভাগ করা হবে।
১৯৭২ সালে শিক্ষা, ধর্ম, খেলাধুলা ও সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয় এর মাধ্যমে যাত্রা শুরু হয়েছিল এই মন্ত্রণালয়ের। পরবর্তীতে ১৯৯৩ সালের আগস্ট মাসে শিক্ষা মন্ত্রণালয় নামে আলাদা একটি মন্ত্রণালয় গঠন করা হয়। এখন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অধিনে দুটি বিভাগ হবে এর একটি হতে পারে মাদ্রাসা ও কারিগরি শিক্ষাসহ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা নামে একটি বিভাগ। এরসঙ্গে সম্পৃক্ত দপ্তর ও অধিদপ্তর তাদের অধিনে থাকবে। আর একটি বিভাগ হবে উচ্চ শিক্ষা বিভাগ। সেখানে দুটি বিভাগে দুইজন সচিব থাকবেন।
১৯৭১ সালের পর স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় প্রতিষ্ঠা করা হয়েছিল। শুরু থেকে একটি হিসাবেই রেেয়ছে। এর অধিনে এখনও কোন বিভাগ নেই। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় দুটি বিভাগ হবে। এই দুটি বিভাগের মধ্যে একটি বিভাগ হবে সকল আইনশৃঙ্খলা বাহিনী পরিচালনা করার জন্য ও তাদের সুযোগ সুবিধা বাস্তবায়ন করার জন্য। পাশাপাশি তদারকিও করবে তারা। এর অধিনে সংশ্লিষ্ট বিভাগগুলো রাখা হবে। আর এখন এক মন্ত্রণালয়ই রাজনৈতিক বিষয়গুলো দেখে। সেটা আলাদা করা হবে। ওই বিভাগে পাসপোর্ট অধিদপ্তরসহ সংশ্লিস্ট অন্যান্য দপ্তর, পরিদপ্তর ও অধিদপ্তর থাকবে। দুই বিভাগের প্রধান হবেন দুই জন সচিব।
স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান মন্ত্রণালয় এখন একটি মন্ত্রণালয় হিসাবে কাজ করছে। সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের অধিনে দুটি বিভাগ করবে। এর একটি হবে স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা বিভাগ। সকল মেডিকেল কলেজ, হাসপাতালসহ এর অধিনে থাকবে এই সংক্রান্ত সব দপ্তর। পরিবার কল্যাণ নামেও একটি আলাদা বিভাগ হবে। এই দুই বিভাগে দুই জন সচিব থাকবেন।
¯’ানীয় সরকার মন্ত্রণালয় এর আগে একবার ভাগ করা হয়েছে। তখন এই মন্ত্রণালয়ের নাম ছিল ¯’ানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়। সেখান থেকে পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় নামে আলাদা মন্ত্রণালয় গঠন করার পর থেকে এখন ¯’ানীয় সরার মন্ত্রণালয় নামেই পরিচালিত হবে। এখন এর অধিনে দুটি ভাগ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কাজের গতি বাড়ানোর জন্য ও দ্রুত ¯’ানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানগুলো নিয়ে একটি বিভাগ হবে। এরমধ্যে সকল সিটি করপোরেশন, জেলা পরিষদ, পৌরসভা, উপজেলা পরিষদ ও ইউনিয়ন পরিষদ থাকবে। এদের পরিচালনা ও তদারকির কাজ করবে ওই বিভাগ। আর একটি বিভাগের অধিনে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর, এলজিডিসহ সংশ্লিস্ট দপ্তর।
জন প্রশাসন সচিব আরো বলেন, কাজের গতি বাড়াতে সরকার প্রয়োজন মতো বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের অধিনে বিভাগ তৈরি করতে পারে। এর আগে অর্থ মন্ত্রণালয়ের অধিনে তিনটি বিভাগ করা হয়েছে। এতে করে সেখানে কাজের গতিও বেড়েছে।

Rate this item
(0 votes)

সর্বাধিক পঠিত

কুরআন বুঝার চেষ্টা করি।

পৃথিবীতে সবচেয়ে পরিশ্রমী পতঙ্গ হলো পিঁপড়া। তারপরে কে?

Read more

JPL DOOR & FURNITURE IND.

প্রতিষ্ঠিত ফার্নিচার কোম্পানীর জন্য দুইজন সচ্ছল

Read more

JPL DOOR & FURNITURE IND.

সমকামী নাটক প্রচার করে তোপের

 

 

 

ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষে সমকামীদের অধিকার নিয়ে মোবাইল

Read more

ব্রেকিং নিউজঃ- নিন্দা ও

ব্রেকিং নিউজঃ- নিন্দা ও একাত্ততা প্রকাশ।

Read more

যে নারীকে বিয়ে করা সুন্নাত

যে নারীকে বিয়ে করা সুন্নাত

বিয়ের মাধ্যমে মানুষ পূর্ণাঙ্গ

Read more

যেভাবে বিভাগ হতে পারে পাঁচটি

যেভাবে বিভাগ হতে পারে পাঁচটি মন্ত্রণালয়

বাংলা খবর ডেস্ক :

Read more

বজ্রপাতে নিহত ব্যাক্তির লাশ

বজ্রপাতে নিহত ব্যাক্তির লাশ চুরি হয় কেনো? কি বিশেষত্ব আছে

Read more

গাজীপুরে ৫০ কেজি গাঁজাসহ আটক ২

গাজীপুরে ৫০ কেজি গাঁজাসহ দুই ব্যক্তিকে আটক করেছে জয়দেবপুর

Read more